আগামী বছরের শুরুতেই মিলবে করোনা টিকা! কত পড়তে পারে দাম জানেন?

0
47

নিজস্ব প্রতিবেদন (২০.১১.২০২০) পল্লবী সন্যাল :  দেখতে দেখতে এক বছর হয়ে গেল গোটা বিশ্বে দাপিয়ে বেড়াচ্ছে করোনা। অথচ কী উপায়ে তার দাপট কমানো যায়, সেই প্রশ্নের উত্তর আজও হাতড়ে বেড়াতে হচ্ছে। ট্রায়াল এসে কবে বাজারে আসবে কোভিড নিধনকারী ভ্যাকসিন, আর কবেই বা তা মানুষের শরীরে প্রয়োগ করা সক্ষম হবে সে ব্যাপারেও নিশ্চিতভাবে কিছু বলা যাচ্ছে না। দিনক্ষণ সবই সম্ভাব্যের খাতায়। যেমন নতুন বছরের শুরুতে অক্সফোর্ডের কোভিশিল্ড বাজারে চলে আসবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন পুনের ‘সেরাম ইনস্টিটিউট অফ ইন্ডিয়া’ র সিইও আদর পুনাওয়ালা। তাঁর সংস্থার হাত ধরেই বাজারে আসতে চলেছে অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের ভ্যাকসিন। সেই মতো অক্সফোর্ডের ভ্যাকসিনের অ্যাস্ট্রেজেনেকার সঙ্গে হাত মিলিয়ে করোনা প্রতিষেধকের পরীক্ষা চলছে ভারতে।

আরও দেখুন

সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে, আশা করা যায় যে ২০২১-এর ফেব্রুয়ারিতে বয়স্ক মানুষ ও স্বাস্থ্যকর্মীদের কাছে পৌঁছে যাবে এই ভ্যাকসিন। এর দুমাস পরে এপ্রিল নাগাদ পৌঁছবে সাধারণের কাছে। তবে সকল নাগরিকের হাতের মুঠোয় ২ ডোজ পেতে পেতে ২০২৪ সাল। এক ডোজ ভ্যাকসিনের খরচ পড়তে পারে ৫০০ থেকে ৬০০ টাকা। সেক্ষেত্রে দু ডোজ ভ্যাকসিনের খরচ ১০০০ টাকা। সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে এমনটাই জানিয়েছেন আদর পুনাওয়ালা। প্রথম পর্যায়ে ভ্যাকসিনের ৩০ থেকে ৪০ কোটি ডোজ ভারতে চলে আসবে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

আরও দেখুন

কতটা কার্যকরী হবে অক্সফোর্ডের তৈরি প্রতিষেধক? উত্তরে সেরাম ইনস্টিটিউট অফ ইন্ডিয়া’ র সিইও জানান, বৃদ্ধ-বৃদ্ধাদের শরীরে ভালোরকম কার্যকরী হয়েছে এই ভ্যাক্সিন। এর টি-সেল রেসপন্স ভালো। এটি শরীর দীর্ঘস্থায়ী প্রতিরোধক ক্ষমতা তৈরি করবে বলে আশা করা যায়। কিন্তু কার্যকারিতার স্থায়ী মেয়াদ কতদিন সে সম্পর্কে এখনই কিছু নির্দিষ্ট করে বলা সম্ভব নয় বলে জানিয়েছেন তিনি। ভ্যাকসিন প্রয়োগের বিষয়ে ভারতকেই প্রাধান্য দেওয়া হচ্ছে সংস্থার তরফে।

আরও দেখুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here