জেনে নিন কি ভাবে বানায় পদ্ম নিমকি…

0
367

নিজস্ব প্রতিবেদন (দেবস্মিতা ঘোষ)২৩.১০.২০২০

এই  সভ্রান্ত  পরিবারটি  বালির  প্রাচীন  দত্ত  পরিবারের  একটি  শাখা।  এঁদের  পূর্বপুরুষ  গোবিন্দ  চরণ  দে  দিল্লির  কোন  বাদশাহের  কাছ  থেকে  জায়গীর  লাভ  করে  আন্দুল  থেকে  বসবাসের  জন্য  কলকাতায়  আসেন।  এঁর  চার  পুত্র –  বাণেশ্বর,  ভুবনেশ্বর,  বিশ্বেশ্বর  ও  রামনারায়ণ।  বাণেশ্বরের   তৃতীয়  পুত্র  রামচন্দ্র  ছিলেন  ইস্ট  ইন্ডিয়া  কোম্পানির  আমদানি  রফতানি  বিষয়ের  বেনিয়ান।  রামচন্দ্র  ভাইয়েদের  সম্মতি  নিয়ে  তাঁদের  জমি-জায়গা-বাড়ির  পরিবর্তে  হাটখোলা  অঞ্চলে  ভূ-সম্পত্তি  কেনেন।  তখন  থেকেই  এঁদের  পরিচয়  হয়  হাটখোলার  দত্ত  পরিবার।  রামচন্দ্রের  ছিল  পাঁচ  পুত্র –  কৃষ্ণচন্দ্র,  মাণিক্যচন্দ্র,  ভারতচন্দ্র,  শ্যামচন্দ্র  ও  গোরাচাঁদ।  মধ্যম  পুত্র  মাণিক্যচন্দ্রের  তিন  পুত্র –  জগৎরাম,  কৌতুকরাম  ও  গুলাবরাম।  জগৎরাম  দত্ত  এই  ৭৮,  নিমতলা  ঘাট  স্ট্রিটে  ভদ্রাসন  স্থাপন  করে  শুরু  করেন  দুর্গোৎসব।  জগৎরামের  ছিল  তিন  পুত্র –  কাশীনাথ,  রামজয়  ও  হরসুন্দর।  এখন  এখানে  বাস  করেন  রামজয়ের  বংশধরেরা।  যশোহর  ও  হুগলি  জেলায়  এঁদের  জমিদারি  ছিল। 

            এই  বাড়ির  প্রতিমার  সিংহ  ঘোটক  আকৃতির।  প্রতিমার  পিছনের  চালি  ‘মঠচৌড়ি’  অর্থাৎ  তিন  চালি।  পুজোর  সমস্ত  কাজ  করেন  ব্রাহ্মণেরা।  

এই বাড়ির এক বিখ্যাত ভোগ হলো পদ্ম নিমকি।

 উপকরণ:-

১ কাপ ময়দা

১/২ চা চামচ বেকিং সোডা

১/২ চা চামচ নুন

২ টেবিল চামচ রিফাইন্ড অয়েল

১/২ চা চামচ চিনি

প্রয়োজন মতো জল

প্রয়োজন মতো ভাজার জন্য রিফাইন্ড অয়েল

প্রণালী:-

 প্রথমে ময়দায় রিফাইন্ড অয়েল, বেকিং সোডা, নুন, চিনি দিয়ে ভালো করে মেখে ২০ মিনিট ডো টাকে ঢাকা দিয়ে রাখতে হবে।২০ মিনিট পর ডো টাকে আরেক বার ভালো করে মেখে নিতে হবে । তারপর লেচি কেটে নিতে হবে ।তারপর লেচিটিকে গোল করে বেলে নিতে হবে । এবার হাতের সাহায্যে পদ্মের আকারে সেপ দিয়ে নিতে হবে । এর উপর কাটা চামচ বা টুথ পিক দিয়ে ছিদ্র করে নিতে হবে যাতে নিমকির ভিতর পর্যন্ত ভালো করে ভাজা হয়।প্রথমে তেল গরম করে তেল টাকে আঁচ কমিয়ে ঠান্ডা করে নিতে হবে। তারপর হাল্কা আঁচে নিমকি গুলো ভাজতে হবে।লাল করে ভেজে নিলেই তৈরি হয়ে যাবে পদ্ম নিমকি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here