৬ বছরের পুরনো ঘটনার পুনঃরাবৃত্তি ইউক্রেনে!

0
2228

নিজস্ব প্রতিবেদন (পল্লবী সান্যাল) ২৬.০৯.২০২০ : বায়ুসেনার পণ্যবাহী বিমান ভেঙে দুর্ঘটনায় মৃত ২৭ জন যাত্রী। নিহতদের মধ্যে ২২ জনই বায়ুসেনার জওয়ান। শুক্রবার মধ্যে রাতে দুর্ঘটনাটি ঘটেছে পূর্ব ইউক্রেনের চুহুইভ শহরের কাছে একটি সামরিক বামানঘাঁটি থেকে ২ কিলোমিটারের মধ্যে।

সেদেশের জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা দফতর সূতরে খবর, দুর্ঘটনায় মৃত্যু হয়েছে সে দেশের এয়ারফোর্স ইউনিভার্সিটির বেশ কয়েকজন ক্যাডেটের। ইউক্রেনীয় বায়ুসেনার খারকভ ইউনিভার্সিটির ওই পড়ুয়ারাই একটি প্রশিক্ষণ উড়ানশুরু করেছিলেন। কী কারণে বিমানটি ভেঙে পড়ল তা স্পষ্ট নয়। তবে দুর্ঘটনা ঘটানোর নেপথ্যে রুশপন্থী বিদ্রোহীদের যোগ থাকার সম্ভাবনা উড়িয়ে দেওয়ার নয়। কারণ বছর ছয়েক আগে ২০১৪-র জুলাইতে পূর্ব ইউক্রেনে বিদ্রোহীদের হামলার কবলে পড়েছিল অ্যামস্টারডাম থেকে কুয়ালালামপুরগামীর একটি যাত্রীবাহী বিমান। মৃত্যু হয় ২৯৮ জন যাত্রী সহ পাইলটদের। সেইবার গোটা ঘটনার জন্য আঙুল উঠেছিল রাশিয়ার দিকে। দাবি ওঠে, ইউক্রেনে রুশপন্থী বিদ্রোহীরাই হামলা করেছে। বেশ কয়েক বছর ধরেই পূর্ব ইউক্রেনে সরকারি বাহিনী ও ‘রাশিয়ার মদতপুষ্ট’ বিদ্রোহীদের মধ্যে লড়াই চলছে। বিদ্রোহীরা ওই অঞ্চলকে ইউক্রেন থেকে পৃথক করে রাশিয়ার অংশ হিসেবে ঘোষণা করতে চায়। লড়াইয়ের ময়দান থেকে চুহুইভ শহরের দূরত্ব মাত্র ১০০ কিলোমিটার। ফলে এই বিমান দুর্ঘটনার পেছনে বিদ্রোহী যোগ কোনও ছালেও তাতে অবাক হওয়ার কিছু নেই।

Loading...

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here