অষ্টমীতে চেখে দেখুন লাবড়ার ঘণ্ট

0
386

নিজস্ব প্রতিবেদন (দেবস্মিতা ঘোষ)২১.১০.২০২০

অষ্টমীর অঞ্জলি ছাড়া যেমন পুজো সম্পূর্ণ হয় না, তেমনই সম্পূর্ণ হয় না অষ্টমীর ভোগ ছাড়া। বাড়িতে যতই নানা ধরনের মন ভরানো খাবার বানান না কেন, পুজোর ভোগের খাবারের স্বাদ আনতে পারবেন না। অমৃতসম সেই সব ভোগ কেবল যেন পুজোর বিশেষ উপলক্ষকে কেন্দ্র করেই তৈরি। পুজো প্রায় দোড়গোড়ায়। অষ্টমীর সাজও তৈরি। এবার দেখে নেওয়া যাক পুজোর ভোগের ছোট্ট তালিকা।আর সেই পুজোতে লাবড়া হবে না ভাবা যায়?

আসুন জেনে নি লাবড়ার রেসিপি

উপকরণ

আলু

 পটল

বেগুন

গাজর

কাকরোল টুকরো

কুমড়ো টুকরো

পেঁপে টুকরো

 বরবটি

ঝিঙা

 কাঁচা লংকা

আদা বাটা

লঙ্কা গুঁড়ো

হলুদ গুঁড়ো

জিরা গুঁড়া

ধনে গুঁড়া

ভাজা মসলা গুঁড়া

চিনি

পাঁচফোড়ন

 তেজপাতা

শুকনো লঙ্কা

 তেল

 ঘি

নারকেল কোরানো

নুন

প্রণালী

সমস্ত সবজি কেটে ধুয়ে নিন।শাক গুলো কেটে অল্প লবণ দিয়ে ভাপিয়ে নিয়ে জল ঝরিয়ে রাখুন।কড়াইতে তেল গরম করে প্রথমে আলু,কচু,পেঁপে,গাজর অল্প লবণ হলুদ দিয়ে বেশ সময় নিয়ে ভেজে নিন।এরপর বাকি সবজি গুলো লবণ হলুদ দিয়ে অল্প ভেজে নিন।এবার কড়াইতে তেল আর ২ টেবিল চামচ ঘি দিয়ে তেজপাতা,শুকনো লঙ্কা,পাঁচ ফোড়ন দিয়ে তারপর আদা বাটা দিন।তারপর একে একে লঙ্কা গুঁড়ো,হলুদ গুঁড়ো,জিরে গুঁড়ো,ধনে গুঁড়ো,লবণ দিয়ে ভালো করে কষিয়ে নিন।এরপর সবজি গুলো দিয়ে মশলার সঙ্গে ভালো করে মিশিয়ে ভাপিয়ে রাখা শাক দিয়ে দিন।ঢাকা দিয়ে অল্প আঁচে রান্না করুন।সবজি থেকে বেরিয়ে আসা জলে কিছুক্ষণ রান্না করার পর অল্প জল দিন আর সবকিছু ভালো মত সিদ্ধ হয়ে আসা পর্যন্ত ঢাকা দিয়ে মাঝারি আঁচে রান্না করুন।জল দেওয়ার আগে কাঁচা লঙ্কা গুলো দিয়ে দিন।সবশেষে চিনি দিন।তারপর ২টেবিল চামচ ঘি আর ভাজা মশলা গুঁড়ো ছড়িয়ে ভালো করে মিশিয়ে নামিয়ে নিন।নামানোর পর ওপর থেকে নারকেল কোড়া টা ছড়িয়ে দিন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here