বিহারে মুখ্যমন্ত্রী হওয়ার দৌঁড়ে কারা?

0
1201

নিজস্ব প্রতিবেদন (পল্লবী সান্যাল) ২৯.০৯.২০২০ :  দেশজুড়ে করোনার বাড়বাড়ন্ত. আতঙ্ককে সঙ্গে নিযেই অক্টোবরে বিধঘানসভা নির্বাচন হতে চলেছে বিহারে. কারা রয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী হওয়ার দৌঁড়ে? কেই বা হবেন আগামীর মুখ্যমন্ত্রী? আর কারাই বা হাড্ডাহাড্ডি লড়াই দিতে চলেছেন নীতিশ কুমারকে?

মুখ্যমন্ত্রীর পদে হেভিওয়েট প্রার্থীর মধ্যে নীতিশকে টক্কর দিতে উঠে আসছে এলজেপির রামবিলাস পাসওয়ানের নাম। রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা মনে করেছেন, বিহার বিধানসভা নির্বাচনে মুখ্যমন্ত্রিত্বের দৌঁড়ে শেষবারের মতো দৌঁড়তে পারেন পাসওয়ান। কারণ পরের বিধানসভায় রামবিলাস তাঁর ছেলে চিরাগের জন্য ঘুঁটি সাজাতে পারেন।

আবার বিরোধী আরজেডির তেজস্বী যাদবও রয়েছেন নীতিশের বিপরীতে। প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী লালু প্রসাদ যাদবের এই পুত্র বিহারের রাঘোপোর বিধানসভা আসন থেকে ২০১৫ সালে জয়লাভ করে গোবলয় রাজনীতিতে স্পষ্টতই একটা ছাপ ফেলেছিলেন।লালুপ্রসাদ পশু কেলেঙ্কারি মামলায় কারাবন্দি রয়েছেন। আরজেডি সুপ্রিমোর অনুপস্থিতিতে দলের দেখাশোনা করছেন তেজস্বীই। এক সময়ের শরিক ডেডিইউকে মসনদচ্যূত করতে একপ্রকার বদ্ধপরিকর তিনি।

বিহারে এনডিএ জোট মুখ্যমন্ পদপ্রার্থী হসবে আগেই নীতিশের নাম ঘোষণা করা হয়েছে বিজেপির শীর্ষস্তরীয় নেতাদের সম্মতিতে। এদিকে, বিজেপির সঙ্গে বিহারে জেডিইউয়ের জোট গড়ার মূল হোথা ছিলেন সুশীল মোদি। সেই সুশীল মোদিই বিহার সরকারের উপমুখ্যমন্ত্রীর দাযত্বে রয়েছেন। তবে বিহারের ভোট অঙ্কের গতিবিধি অনুযায়ী বিজেপির এই নেতাও মুখ্যমন্ত্রিত্বের দাবিদার হতে পারেন দলিত প্রার্থী হিসেবে মুখ্যমন্ত্রীর দৌঁড়ে নাম লেখাতে পারেন জিতেন রাম মাঝিও। এমনটাই অনুমান। কারণ বহু কাঠখড় পুড়িয়ে বিহারের দলিত শিবিরের এই নেতা তথা হিন্দুস্থানি আওয়াম মোর্চার জোট শিবিরে নাম লিখিয়েছেন।

১৯৮০ থেকে বিহারে দলিত ভোট সমর্থনের একটি মুখ হিসেবে তাঁকে চিনে আসছে বিহারবাসী। ২০১৪ তে এনডিএর সঙ্গে সংঘাতের পর তিনি বিজেপি-জেডিউ বিরোধীদের সঙ্গে হাত মেলান। এরপর নীতীশ কুমার তাঁকে পদত্যাগ করতে বললে তিনি আস্থা ভোটেও পর্যুদস্ত হন। পরে বহু চড়াই উতরাই পেরিয়ে এনডিএতে টিকে রয়েছেন তিনি। অন্যদিকে শোনা যাচ্ছে, পুষ্পম প্রিয়া চৌধুরি  বিহারের রাজনৈতিক ময়দানে নতুন মুখ হতে চলেছেন। ২০২০ সালে তাঁর পার্টি ‘প্লুরালস পার্টি’ পা রাখছে ভোট লড়াইয়ের ময়দানে। লন্ডন স্কুল অফ ইকোনমিক্সের ছাত্রী পুষ্পম বিহারে নতুন ভাবনার রাজনৈতিক শক্তি নিয়ে হাজির।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here